ওয়ালটনের অষ্টম প্রজন্মের ল্যাপটপ

বিভিন্ন বিদেশি কোম্পানির পাশাপাশি দেশের প্রযুক্তি বাজারে রয়েছে দেশীয় ব্র্যান্ড ওয়ালটনের দারুণ সব ল্যাপটপ। সাশ্রয়ী দাম, আকর্ষণীয় ডিজাইন, উচ্চমান এবং হাই-কনফিগারেশনের জন্য ক্রেতাদের পছন্দ ওয়ালটন। তাছাড়া ওয়ালটন ল্যাপটপের অন্যতম উল্লেখযোগ্য ফিচার এর মাল্টি-ল্যাংগুয়েজ এ ফোর সাইজ কিবোর্ড। যাতে স্ট্যান্ডার্ড ইংরেজির পাশাপাশি রয়েছে বিল্ট-ইন বাংলা ফন্ট। ফলে বাংলা ভাষাভাষী যে কেউ অনায়াসে এ ল্যাপটপ ব্যবহার করে লিখতে পারেন। প্রিলুড, প্যাশন, টেমারিন্ড, কেরোন্ডা এবং ওয়াক্সজ্যাম্বো সিরিজের ২৩ মডেলের ওয়ালটন ল্যাপটপ বাজারে রয়েছে। এগুলোর মধ্যে ডব্লিউপি১৫৮ইউ৫জি মডেলের ল্যাপটপটিতে ব্যবহৃত হয়েছে অষ্টম প্রজন্মের প্রসেসর। ধূসর (গ্রে) রঙের আকর্ষণীয় ডিজাইনের এ ল্যাপটপটির দাম ৪৮ হাজার ৫০০ টাকা। পাঠকের জন্য ল্যাপটপটির ফিচারগুলো নিচে দেওয়া হলো।
এ ল্যাপটপের ডিসপ্লে ১৫.৬ ইঞ্চির। এইচডি মানের পর্দার রেজ্যুলেশন ১৩৬৬ বাই ৭৬৮ পিক্সেল, যা দেবে নিখুঁত ও জীবন্ত ছবি। বিভিন্ন কোণ থেকে ডিসপ্লে দেখা যাবে স্পষ্টভাবে। এতে রয়েছে কোর আই ফাইভ-৮২৫০ইউ প্রসেসর। ১.৬ গিগাহার্জ গতির ইন্টেলের অষ্টম প্রজন্মের এ প্রসেসর দেবে উচ্চগতি এবং মাল্টিটাক্সিং সুবিধা। ল্যাপটপে কাজ কিংবা গেম খেলা হবে আরও সহজ ও আনন্দময়। সঙ্গে রয়েছে বিল্টইন ইন্টেল এইচডি গ্রাফিক্স ৬২০। ফলে গেম খেলার সময় উচ্চ গ্রাফিক্যাল ইন্টারফেস পাওয়া যাবে। ভিডিও এডিটিং কাজে গ্রাফিক্যাল কালার ও মানও হবে উন্নত। এতে ব্যবহৃত হয়েছে ডুয়াল চ্যানেল ৪ গিগাবাইট ডিডিআর৪ র‌্যাম। ফলে প্রয়োজনীয় কাজ কিংবা পছন্দের গেম খেলায় পাওয়া যাবে দারুণ গতি। তাছাড়া, আরও বেশি গতির প্রয়োজন হলে ৩২ জিবি পর্যন্ত র‌্যাম বাড়ানো যাবে। প্রয়োজনীয় ফাইল, সফটওয়্যার, গেম, মুভি ইত্যাদি সংরক্ষণের জন্য এ ল্যাপটপে এক টেরাবাইট হার্ডডিস্ক ড্রাইভের সঙ্গে রয়েছে ৭ মিমি সাটা ইন্টারফেস। ফলে সুযোগ থাকছে আরও বেশি জায়গাযুক্ত হার্ডডিস্ক ড্রাইভ ব্যবহারের।
দীর্ঘক্ষণ পাওয়ার ব্যাকআপের নিশ্চয়তায় এ ল্যাপটপে ব্যবহৃত হয়েছে শক্তিশালী ৪ সেলের লিথিয়াম-আয়ন ব্যাটারি, যা পাঁচ ঘণ্টা পর্যন্ত পাওয়ার ব্যাকআপ দিতে সক্ষম।
এতে রয়েছে ১ মেগা পিক্সেলের এইচডি ক্যামেরা, যার ফলে ভিডিও কল হবে প্রাণবন্ত। ধারণ করা যাবে এইচডি মানের ভিডিও। আকর্ষণীয় গেমিং আবহ তৈরি, গান শোনা ও মুভি দেখায় বাড়তি মাত্রা যোগ করবে এর হাই ডেফিনেশন অডিও। দুটি বিল্ট ইন স্পিকার দেবে স্পষ্ট ও জোরালো শব্দ। কানেকটিভিটির জন্য এ ল্যাপটপে রয়েছে ইউএসবি ২.০, ৩.০ এবং ৩.১ (টাইপ সি)-এর চারটি পোর্ট, নাইন-ইন-ওয়ান কার্ড রিডার, ব্লুটুথ ভার্সন ৪, ওয়্যারলেস ল্যান, এইচডিএমআই ও ভিজিএ পোর্ট, হেডফোন ও মাইক্রোফোন জ্যাক ইত্যাদি। ব্যাটারিসহ এর ওজন মাত্র ২.২ কেজি। ল্যাপটপটিতে থাকছে ২ বছরের ফ্রি বিক্রয়োত্তর সেবা।